চল্লিশ পেরোলেই ভারতে কমে যাচ্ছে যৌন ইচ্ছা, কেন বাড়ছে লিবিডোর এই রোগ

চল্লিশ পেরোলেই চালসে। তবে ৪০ পেরোলে শুধু চালসে নয়, আরও নানা সমস্যার সম্মুখীন হন ভারতবাসীরা, বিশেষত পুরুষেরা। ৪০ পেরোলেই ভারতীয় দম্পতিদের মধ্যে যৌন ইচ্ছা চলে যাওয়ার সমস্যা বাড়ছে ক্রমশ। সম্প্রতি একটি গবেষণায় দেখা গিয়েছে, ভারতে ৪০ বছরের উপরে থাকা প্রত্যেক তৃতীয় ব্যক্তি এই সমস্যায় ভুগছেন। চিকিৎসা পরিভাষায় এই রোগের নাম টেস্টোস্টেরন ডেফিশিয়েন্সি সিন্ড্রোম বা টিডিএস (testosterone deficiency syndrome)। এই রোগের কারণে মানুষের দেহে লিবিডোর অভাব (lack of libido) দেখা যায়, লিবিডো আমাদের যৌন ইচ্ছা জাগানোর উপাদান। 




ওই হাসপাতালের চিকিৎসক এবং গবেষক ডাঃ সুধীর চাড্ডা জানান, টেস্টোস্টেরন ডেফিশিয়েন্সি সিন্ড্রোমের (testosterone deficiency syndrome) সঙ্গে বেশ কয়েকটি বিষয় জড়িয়ে। ভিটামিন ডি-এর অভাব, ডায়াবেটিস এবং করোনারি হৃদরোগের সঙ্গে উল্লেখযোগ্য সম্পর্ক রয়েছে মানুষের যৌন ইচ্ছা কমে যাওয়ার, বা যৌন মিলনের শক্তি হ্রাস হওয়ার। 


উচ্চ রক্তচাপ, হৃদরোগ, ওজন বাড়ার সব সমস্যা নিয়ন্ত্রণে আনতে পারে এই একটিই সবজির রস

গবেষক ডাঃ সুধীর চাড্ডা আরও বলেন, “টিডিএস (TDS) বা টেস্টোস্টেরন ডেফিশিয়েন্সি সিন্ড্রোম খুবই সাধারণ ঘটনা। আমাদের গবেষণায় যতজনের উপর পরীক্ষা করা হয়েছিল তাঁদের মধ্যে ২৮.৯৯ শতাংশের দেহে এই টেস্টোস্টেরন ডেফিশিয়েন্সি সিন্ড্রোম ছিল। এর অর্থ হচ্ছে, ৪০ বছর বয়সের উপরে যাঁদের বয়স সেই দলের প্রত্যেক তৃতীয় ব্যক্তির টেস্টোস্টেরনের ঘাটতির সমস্যা রয়েছে।”


ভারতের মতো দেশে ক্রমেই বাড়ছে এই সমস্যা। শরীরে ভিটামিন ডি-এর পরিমাণ বাড়ানো, এবং মানসিক ও কাজের চাপ কমানো মানুষের যৌন ইচ্ছা ফিরিয়ে আনতে সাহায্য করতে পারে বলে জানিয়েছেন চিকিৎসকেরা।




(এনডিটিভি এই খবর সম্পাদনা করেনি, এটি সিন্ডিকেট ফিড থেকে সরাসরি প্রকাশ করা হয়েছে।)

No comments

Powered by Blogger.